কোম্পানীগঞ্জে আওয়ামীলীগের কর্মী সমাবেশ ,শঙ্কিত কর্মীরা শান্তির পথ দেখছে

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: নোয়াখালী আওয়ামী রাজনীতির সংকট নিরসনে জেলা আওয়ামীলীগ আহবায়ক কমিটির আগমনে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা ও বসুরহাট পৌরসভা আওয়ামীলীগের যৌথ উদ্যোগে এক কর্মী সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

রবিবার (৩১ অক্টোবর) সকাল ১০টায় বসুরহাট পৌরসভা মিলনায়তনে জেলা আওয়ামীলীগ আহবায়ক কমিটির নবনির্বাচিত আহবায়ক খায়রুল আলম সেলিম এর সভাপতিত্বে ও বসুরহাট পৌরসভা আওয়ামীলীগ এর সাধারণ সম্পাদক আবুল খায়ের এর সঞ্চালনায় এ কর্মী সভা অনুষ্ঠিত হয়। নতুন এ আহবায়ক কমিটির আগমনের খবর পেয়ে সকাল ৯টা থেকে কোম্পানীগঞ্জ ও কবিরহাট উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে নেতাকর্মীরা দলে দলে মিছিল নিয়ে সভাস্থলে জড়ো হতে থাকে। দুপুর ১.৩০টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হওয়া এ কর্মীসভায় নেতৃবৃন্দ কি আশ্বাস ও সমাধানের বার্তা নিয়ে এসেছেন তা জানতে কর্মীসভাটি জনসভায় রূপ লাভ করে।

এ সময় আহ্বায়ক কমিটির নেতৃবৃন্দ নোয়াখালী আওয়ামীলীগ এর রাজনীতিতে এমপি একরামুল করিম চৌধুরী দ্বারা আওয়ামী রাজনীতিতে বিধি বহির্ভূত আদিপত্যের কথা তুলে ধরেন। জেলা আহবায়ক কমিটির যুগ্ম আহবায়ক শিহাব উদ্দিন শাহীন বলেন, একরামুল করিম চৌধুরী নোয়াখালী রাজনীতিকে শেষ করে দিয়েছেন। নোয়াখালীর মানুষ চাকুরী বাণিজ্য, টেন্ডার বাণিজ্য কি তা জানতো না। একরামুল করিম চৌধুরী তা চালু করে আওয়ামী রাজনীতির দুর্নাম প্রতিষ্ঠা করেছেন। এতদিনেও এ জেলার উপজেলাগুলোতে কোন সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়নি। গঠন করতে পারেনি উপজেলা ভিত্তিক দলের কমিটি। 

আহবায়ক কমিটির অপর যুগ্ম আহবায়ক  শহীদ উল্যাহ খান সোহেল বলেন, আমরা তৃণমূল থেকে উঠে আসা কর্মী। আমরা উড়ে আসিনি। আমরা হারতে শিখিনি। আমাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব তথা নোয়াখালী রাজনীতির যে সংকট তৈরী হয়েছে তাতে আমাদের অভিভাবক ও জননেতা ওবায়দুল কাদের এর পরামর্শ মতে সকলকে নিয়ে এ সংকট আমরা নিরসন করবো। ইনশাআল্লাহ আমরা অচিরেই এ কনস্টিটিউন্সিতে সকল আসনে আওয়ামীলীগ প্রার্থীদের পক্ষে নিরংকুশ বিজয় ছিনিয়ে আনবো। 

এ সময় আরো বক্তব্য রাখেন কমিটির সদস্য সাবেক সংসদ সদস্য মোহাম্মদ আলী, আয়েশা ফেরদৌস আলী এমপি। উপস্থিত ছিলেন বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদেও মির্জা, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ইস্কান্দার হায়দার চৌধুরী বাবুল, সেক্রেটারী মোহাম্মদ ইউনুছ ও দলের অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। 


শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.