কোম্পানীগঞ্জে ২০০টাকার ঔষধ বিক্রি ৪০০টাকায়, ভুক্তভোগীর কলে ৭ মিনিটে হাজির হলেন ইউএনও

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট বাজারে নিত্যনন্দ ফার্মেসিতে ২০০ টাকার ডিফোডিন ৪০০ টাকায় বিক্রি করা হয়েছে। ভুক্তভোগী ক্রেতা ফোনে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফয়সল আহমেদকে ঘটনাস্থল থেকে এ বিষয়ে অভিযোগ করলে তিনি ৭ মিনিটে অভিযুক্ত ফার্মেসিতে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

বুধবার উপজেলার বসুরহাট বাজারে এ ঘটনা ঘটে। অভিযোগ রয়েছে, নিত্যনন্দ  ফার্মেসির মালিক সজল শীল অবলীলায় এ রকম প্রতারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

ভুক্তভোগী ক্রেতা আবদুর রহিমের ভাষ্যমতে, দুপুরে ডিফেডান নামক এক বক্স ওষুধ ক্রয় করতে তিনি নিত্যনন্দ ফার্মেসিতে যান। ওই সময় দোকানের মালিক সজল শীল ওষুধের দাম রাখেন ৪০০ টাকা। যদিও ওই ওষুধের বক্সের গায়ে মূল্য লেখা ছিল ২০০ টাকা। ফার্মেসির মালিক নিজেই ওষুধের সঠিক মূল্য কলম দিয়ে কেটে, ক্রেতার কাছ থেকে ৪০০ টাকা নিয়ে যায়। ক্রেতা কারণ জানতে চাইলে ফার্মেসি দোকানের মালিক বলেন, নিলে নেন, না নিলে চলে যান।

পরে ভুক্তভোগী ক্রেতা বিষয়টা ফোনে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফয়সল আহমেদকে জানালে তিনি ৭ মিনিটে অভিযুক্ত ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন। তিনি ঘটনার সত্যতা যাচাই করে ফার্মেসির মালিক সজল শীলের কাছে এর কারণ জানতে চাইলে ফার্মেসির মালিক সঠিক কোনো ব্যাখ্যা দিতে পারেননি।

এ সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত ফার্মেসি মালিককে সতর্ক করে ওষুধের মূল্য পরিবর্তন করে হাতে লিখে মূল্য বাড়ানোর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফয়সাল আহমেদ।


শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.